Wednesday, September 1, 2010

অভাগাদের স্কুল

কাল লিখেছিলাম, রেল-স্টেশনে স্কুলটা চালু করতে চাই আজই [১] কিন্তু সত্যি বলতে এটা আজই চালু হবে এমন দৃঢ় বিশ্বাস ছিল না।
এও এক বিচিত্র! কেমন কেমন করে এটা হলো আমি নিজেই বড়ো অবাক হচ্ছি। বিষয়টা খুব একটা সহজ ছিল না। কাল পর্যন্ত স্কুল-ঘরের নাম-নিশানা নেই, শিক্ষকের পাত্তা নেই, ছাত্রের হদিস নেই।
আগেকার লোকজনরা নাকি বেশি ক্ষেপে গেলে রাতারাতি পুকুর কেটে ফেলত, শুনেছি কিন্তু চোখে দেখিনি! তীব্র ইচ্ছা থাকলে একা-একা খেটেখুঁটে একটা স্কুল দাঁড় করানো সম্ভব এটা অন্তত জানলাম। বাহ, জানার দেখি শেষ নাই!

ক্লাশ চালাবার জন্য একটা জায়গা বড়ো জরুরি ছিল। শুনতে চমৎকার শোনায়, প্ল্যাটফরমে ক্লাশ শুরু করে দেয়া, বাস্তবে যা অশ্বডিম্ব! কারণ লোকজন যেমন গোল হয়ে দাঁড়িয়ে বান্দরের খেলা দেখে স্কুলের অবস্থাটাও হতো তথৈবচ- ছেলেপেলেদের লেখাপড়া শিকেয় উঠত। এটা বাদ দিলেও পুলিশ এসে দাদাগিরি দেখিয়ে হাঁকিয়ে দিলে কোথায় ছাত্র? পড়ে থাকত কেবল কিছু বাদামের খোসা।

এটারও কাকতালীয়ভাবে একটা ব্যবস্থা হয়। স্টেশনের পাশেই রেলের একটা বিল্ডিং-এ উদীচীর একটা অফিস আছে যেটার কথা আমার জানা ছিল না। ওই অফিসটা দীর্ঘকাল ধরে বন্ধ পড়ে ছিল অথচ এটায় চেয়ার-টেবিল, ছোটখাটো বইয়ের সংগ্রহসহ সবই আছে! বিনেপয়সায় এটা পাওয়া গেল।
শিক্ষকের ব্যবস্থাও হয়ে গেল। উদীচী করত ইন্টার পড়ুয়া এমন একটা মেয়ের খোঁজও পাওয়া গেল। স্বল্প সময়ে আমি যা দেখলাম, এই শিক্ষক চমৎকার করবে এবং এখানকার ছাত্ররাও।

স্টেশনে যেসব বাচ্চাদের জন্য এই স্কুল খোলার ভাবনা খেলা করেছিল এদের সবাইকে পাওয়া গেল না, কেবল ছয়জনকেই পাওয়া গেল। মুলত এরা পানি বিক্রি করে। গাড়িতে করে অনেকেই কোথাও চলে গেছে। তাছাড়া ছোট থেকে এরা বড়ো হয়েছে চারপাশে অবিশ্বাস দেখে। স্বভাবতই আমার কথাও এরা বিশ্বাস করেনি, ভেবেছে শুধুশুধু বলা হয়েছে।

এমনিতে 'পড়শী ফাউন্ডেশন'-এর স্কুলগুলোর নাম হচ্ছে, 'আমাদের ইশকুল' কিন্তু আমি এই স্কুলের নাম রেখেছি 'অভাগাদের স্কুল'। যাদের বাবা-মা-বাড়ির কোন খোঁজ নাই এদের আর কী নাম দেব? হো.মো এরশাদের 'পথকলি'?
এরশাদের মত মানুষদের জন্য না-হয় ওই নাম তোলা থাকুক। আমার মত হতভাগা অভাগাকে অভাগাই বলি- সাদাকে সাদা বলাই শ্রেয়।
আমি অল্প কথায় যেটা বুঝি, আমার সন্তানের পড়ার অধিকার থাকলে এদের থাকবে না কেন? এটাও আমি বিশ্বাস করি, এদের মধ্যে থেকে বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নরের মত একজন ড. আতিউর রহমান বের হয়ে আসবে না এটাও অবিশ্বাস করা চলে না।

*পোস্টে আমার লেখার অস্পষ্টতার কারণে সম্ভবত এই বিভ্রান্তিটা সৃষ্টি হয়েছে, এই জন্য দুঃখ প্রকাশ করি।
'অভাগাদের জন্য স্কুল' বা 'এরা অভাগা' এটা কখনই এদের কাছে শেয়ার করা হবে না, এটুকু সেন্স আমার আছে বলেই মনে করি। এই বক্তব্যটা কেবলমাত্র আমার জন্য এবং পাঠকের জন্য।


সহায়ক লিংক:
১. ন্যানো ক্রেডিট, ৬: http://www.ali-mahmed.com/2010/08/blog-post_31.html

6 comments:

Anonymous said...

'obhagader school'!
I don't think this is a very nice name for a children's school.The kids deserve a better name for their school no matter how terrible their background is.Please don't allow them to beleive that they are 'obhaga'.

।আলী মাহমেদ। said...

পোস্টে আমার লেখার অস্পষ্টতার কারণে সম্ভবত এই বিভ্রান্তিটা সৃষ্টি হয়েছে, এই জন্য দুঃখ প্রকাশ করি। বিষয়টা তুলে ধরার জন্য কৃতজ্ঞতা।

'অভাগাদের জন্য স্কুল'বা এরা অভাগা' এটা কখনই এদের কাছে শেয়ার করা হবে না, এটুকু সেন্স আমার আছে বলেই মনে করি।
এই বক্তব্যটা কেবলমাত্র আমার জন্য এবং আমার পাঠকের জন্য।

ধন্যবাদ আপনার মন্তব্যের জন্য। @Anonymous

Homaed said...

আপনার লেখাগুলো প্রতিদিনই প্রায় পড়ি, inspired হই পড়ে। স্কুলগুলো নিয়ে আপনার স্বপ্ন পূরণ হোক এই কামনা করি। শুভ কামনা রইলো।
আপনার স্পষ্ট ভাষার Explanation এর জন্য ধন্যবাদ।

।আলী মাহমেদ। said...

শুভ কামনা জানাবার জন্য আপনাকে অশেষ ধন্যবাদ এবং আপনার সহৃদয় মন্তব্যের জন্যও...। @Homaed

Anonymous said...

Shuvo bhai er abeg majhe moddhe matra charaye gele problem. Ora januk, na januk - jeta onnay, sheta janleo onnay, na janleo onnay. please use your brain a little more and dont be so blind with your emotions. you can not change a wrong into right by giving it emotions.

i find the school's name calling into Ovagader School ebong pore jukti dar korano cheshta ebong bola, je oder eta janano hobe na - thats plain wrong and dishonest.

sorry for telling the truth so blunt, but sometime truth has to be told.

।আলী মাহমেদ। said...

ডিয়ার Anonymous,
জ্বী, আমি এদেরকে অভাগা বলেছি...! আমি তো আপনাদের মতো মানুষকেও অভাগা বলি।

...please use your brain a little more and...
আজকাল তো একটা আধুনিক রোবটেরও নাম থাকে অথচ আপনার মতো জগদ্দল ব্রেনওয়ালা মানুষ নামহীন এটা দেখে আপনার মতো মানুষকে অভাগা না-বলে উপায় কী!

"you can not change a wrong into right by giving it emotions...
আহ-হা, 'এই গ্রহে কত্তো বলো বলো লং হচ্ছে', আমিও করলুম আর কী- আমি তো আর সাধু না!

আপনি হো মো এরশাদ টাইপের লোকজনের সঙ্গে বসে এদের চমৎকার কিছু নাম ঠিক করতে থাকুন। এই যেমন, পথকলি-ফুটন্ত গোলাপ-ভালবাসার লাড্ডু ইত্যাদি। ততক্ষণে আমি আপনাকে গুড বাই জানিয়ে আরও কিছু (আপনার সো কলড) 'লং' কাজ করতে থাকি।

...
অফ-টপিক:
আজকাল আমার সাইটে মুখোশধারীর সংখ্যা আশংকাজনক হারে বেড়ে গেছে! আফসোস, ছেঁড়া মুখোশ কোন কাজের যেটা দিয়ে মুখ-মুখোশের কোন পার্থক্য থাকে না!