Monday, November 30, 2009

পেটেন্ট করানো আবশ্যক

-->
আজ সত্যি সত্যি মনে হচ্ছে, এখানে পেটেন্ট করার একটা শাখা থাকলে এইসব আপাততদৃষ্টিতে উদ্ভট ব্যবসায়িক আইডিয়ার পেটেন্ট করে রাখতাম। হোক উদ্ভট কিন্তু আমার আইডিয়া আমার কাছে সন্তানসম! আহারে, এটাও ফ্লপ করল!

বোতলে করে বাতাস বিক্রি করার আইডিয়া নিয়ে একটা পোস্ট দিয়েছিলাম। আমার ধারণা ছিল এমন উদ্ভট লেখা কেউ পড়েননি। ক্ষীণ ধারণা, ধারণাটা ভুল!

ঈদের দিন আর কাজ কী! এত এত অনুষ্ঠান, কোনটাই দেখা হয় না। এরিমধ্যে একটা বিজ্ঞাপন দেখলাম। 'পূর্বাচল' নামের ডেভলপার, এরা ফ্ল্যাট বিক্রি করে বিজ্ঞাপনে দেখাচ্ছে, বোতলে করে বাতাস বিক্রি করছে। পরে বুঝিয়ে দেয়া হচ্ছে, বোতলে করে বিশুদ্ধ বাতাস কিনে নিয়ে গেলে লাভ নাই; ফ্ল্যাট বা আবাসন কিনতে হবে গাছ-গাছালি পূর্ণ 'পূর্বাচলে'। 

বিজ্ঞাপনটা কারা বানিয়েছে এটা জানার উপায় আপাতত আমার নাই। কিন্তু ক-দিন পূর্বে আমার অতি পরিচিত সেলিব্রেটি টাইপের একজন বিজ্ঞাপনের জন্য কিছু আইডিয়া চাইলেন- এই উদ্ভট আইডিয়াও অন্যতম। আমিও সরল মনে দিলাম। কায়মনে প্রার্থনা করি, অন্তত এই মানুষটার কাছ থেকে ছুঁরি খেতে চাই না!

বোতলে করে বাতাস বিক্রি করার উদ্ভট আইডিয়া আর কারও মাথায় খেলা করবে না এমন দিব্যি কেউ দেয়নি। এমনটা হলে বিষয়টা আমার জন্য আনন্দের, যাক বাবা, অন্তত এই দেশে এমন 'পাগলু ভাবনা' ভাবার লোক অন্তত আরও একজন আছেন। আসেন ব্রাদার, টোস্ট করে আপনার স্বাস্থ্য পান করি।
কিন্তু বাই এনি চান্স এই আইডিয়াটা আমার পোস্ট থেকে নেয়া হয়ে থাকলে বেদনার শ্বাস ফেলে বলতেই হয়, দেশটা চোর-চোট্টায় ভরে যাচ্ছে!   

আমাদের দেশে এইসব অহরহ চলেই আসছে। আমাদের দেশের প্রথম শ্রেণীর পত্রিকাগুলো এই বিষয়ে এক পা এগিয়ে আছে। চোখ বন্ধ করে ওয়েবসাইট থেকে একটা লেখা মেরে দেবে। দয়া করলে কেবল লিখে দায় সারবে, 'ওয়েব সাইট অবলম্বনে'।
অতীতে আমার বেশ কিছু তিক্ত অভিজ্ঞতা আছে। এক পরিচালকের কাছে আমার একটা নাটকের পান্ডুলিপি জমা দিয়েছিলাম। তিনি মনোনীত হয়নি বলে জানিয়েছিলেন। পরে এই লেখাটার প্রচুর রদবদল করে তিনি নিজেই একটা নাটক প্রসব করেছিলেন। কাজটা তিনি এমন সূক্ষ করে করেছিলেন আমার প্রতিবাদ দূরের কথা, আঙ্গুল উঠানোও সম্ভব ছিল না। 
মেনে না নিয়ে উপায় কী- কেউ কেউ ডিমে তা দিয়েই যাবে, অন্যরা সেই ডিম থেকে সদ্যজাত মুরগি গুনবেন। সবই কপাল...।

* বাতাসের ছবি: সংরক্ষিত।   :-)

সহায়ক সূত্র:
১. বাতাস বিক্রি...: http://www.ali-mahmed.com/2009/06/blog-post.html
২. একালের ব্রুটাস...: http://www.ali-mahmed.com/2009/12/blog-post.html

No comments: